peperonity.net
Welcome, guest. You are not logged in.
Log in or join for free!
 
Stay logged in
Forgot login details?

Login
Stay logged in

For free!
Get started!

Text page


new.bangla.choti.peperonity.net

হিমালয় এর বউ রাত্রিকেএকশ আটবার

ঢাকার এক সরকারী অফিসে কাজ করি। খুব উঁচু মানের চাকরি নয়, আবার কেরানির চাকরিও নয়। সদ্য জয়েন করেছি – যা মাইনে পাই একা লোকের ভাল ভাবেই চলে যায়।
আমার পাশের টেবিলে যিনি বসেন তার নাম হিমালয়. এরকম অদ্ভুত নামের কারন জানতে চাইলে তিনি বলেছিলেন – বাবা-মার দেওয়া নামটা তাঁর পছন্দ নয় বলে তিনি নিজেই নিজের এমন অদ্ভুত নাম করন করেছেন। এখন নাকি আসল নামটা শুধু অফিসিয়াল কাজ ছাড়া কোথাও ব্যবহার হয় না।
রোজই দেখতাম কাজের ফাঁকে ফাঁকে কম্পিউটারে কি যেন টাইপ করেন। একদিন জিগ্যেস করলাম – “কি ভাই, কি করেন?”
“এই একটু চটি লিখি।”
আমি নিজে অনেক চটি পড়লেও চটি লিখিনি কখনও। তাই চোখের সামনে একজন চটি লেখককে দেখে বেশ ভাল লাগল। বললাম – “দেখাবেন কি লিখছেন?”
হিমালয় ভাই বলল – “না না ডাইরেক্ট ওয়ার্ড ফাইল দেখানো যাবে না। আমি লিঙ্ক পাঠাচ্ছি – পড়ে নেন।”
তাও মন্দের ভাল। আমি ওনার পাঠানো লিঙ্কে ঢুকে পড়লাম ওনার চটি।
কি আর বলব ভাই – এমন কুত্তার মত জঘন্য লেখা আমি জীবনে পড়ি নাই। গল্পের মাথা মুন্ডু কিচ্ছু নাই – আর কল্পনার তো নাম গন্ধ নাই। সব গল্পের মূল বিষয় বস্তু হল একজন জঘন্য মনের পারভার্ট যাকে পায় তাকেই লাগিয়ে দেয়। কুত্তা বা শুয়োর-রাও বোধহয় এরকম করে লাগায় না। আমার ধারনা হল আপাতদৃস্টিতে বেশ ভদ্রলোক হিমালয় নিজেও নিশ্চয়ই এরকমই পারভার্ট। নইলে এরকম জঘন্য গল্প লেখেন কি করে। গল্প পড়ে মুডটা এমন খিঁচরে গেল, শালা কোন কাজেই মন বসল না। বড় সাহেবের কাছে হালকা বকুনি খেলাম।
পরদিন জিগ্যেস করলাম – “ভাই আপনি এমন বোকাচোদার মতন গল্প লেখেন কেন?”
“হেঁ হেঁ”, শুয়োরের মতন ঘোঁত ঘোঁত করে বলল হিমালয় ভাই – “আসলে জানেন কি, নিজের মনের ভিতর চেপে রাখা সব ইচ্ছে তো পুরন করা যায় না, তাই গল্প লিখে মনের চাহিদা পুরন করি আর কি – আর ঘরের বউ তো ছিবড়ে হয়ে গেছে – তাকাতেও ইচ্ছে করে না – রাতে ঐ কোনোরকম এক বার ঢুকিয়ে দিই – আর বাকি ইচ্ছা চটি লিখে পুরন করি আর কি!”
লোকটা কতটা জঘন্য ক্রমশ বুঝতে পারছিলাম। এইরকম জঘন্য কল্পনা করে তারথেকেও জঘন্য ভাষায় যে লিখতে পারে – তার জাহান্নামে যাওয়াই উচিত। এদিকে বয়স তো ত্রিশের বেশী নয়। আর কথায় কথায় বলেছিল যে – দুবছর হল বিয়ে হয়েছে। বউ এরমধ্যেই পুরনো হয়ে গেল! ভাবলাম মালটার বউটাকে দেখতে হবে একবার।
কয়েকদিন পরেই সেই সুযোগ এসে গেল। হিমালয় এর জন্মদিনের পার্টিতে তার বাড়িতে ...
Next part ►


This page:




Help/FAQ | Terms | Imprint
Home People Pictures Videos Sites Blogs Chat
Top
.